সব
শুক্রবার, ২৬ ফেব্রুয়ারি ২০২১, ১৩ ফাল্গুন ১৪২৭
DBBL Ad

চট্টগ্রাম জেলা পুলিশ সুপারের কার্যালয় উদ্বোধন করলেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী

চট্টগ্রামে মোটরসাইকেলের ধাক্কায় বৃদ্ধের মৃত্যু

চট্টগ্রামে ইংরেজি সাইনবোর্ডের ছড়াছড়ি, শুধু ফেব্রুয়ারিতেই অভিযান

অফিস ও ব্যবসাপ্রতিষ্ঠানসহ সব সাইনবোর্ডে বাংলা লেখা বাধ্যতামূলক। সাইনবোর্ডে ইংরেজিতে লেখা- বাংলা ভাষা প্রচলন আইন, হাইকোর্টের রুল ও আদেশের পরিপন্থী। এটি যেকোনো প্রতিষ্ঠানের নামফলক, বিলবোর্ড, ব্যানার ও গাড়ির নম্বরপ্লেটের ক্ষেত্রেও প্রযোজ্য। কিন্তু এই আইনের তোয়াক্কা না করে বন্দরনগরী চট্টগ্রামে ইংরেজিতে লেখা সাইনবোর্ডের ছড়াছড়ি।

আপডেট : ২১ ফেব্রুয়ারি ২০২১, ১৫:৩৯

অফিস ও ব্যবসাপ্রতিষ্ঠানসহ সব সাইনবোর্ডে বাংলা লেখা বাধ্যতামূলক। সাইনবোর্ডে ইংরেজিতে লেখা- বাংলা ভাষা প্রচলন আইন, হাইকোর্টের রুল ও আদেশের পরিপন্থী। এটি যেকোনো প্রতিষ্ঠানের নামফলক, বিলবোর্ড, ব্যানার ও গাড়ির নম্বরপ্লেটের ক্ষেত্রেও প্রযোজ্য। কিন্তু এই আইনের তোয়াক্কা না করে বন্দরনগরী চট্টগ্রামে ইংরেজিতে লেখা সাইনবোর্ডের ছড়াছড়ি। আইনের কঠোর প্রয়োগ না থাকায় কেউ মানছেন না এ নিয়ম। ভাষার মাস ফেব্রুয়ারি ছাড়া এই আইন মেনে চলার জন্য প্রশাসনিক কোনো অভিযানও চালানো হয় না।

প্রতিবছর ফেব্রুয়ারি এলেই কেবল এ ব্যাপারে তৎপরতা বেড়ে যায় চট্টগ্রাম সিটি করপোরেশন (চসিক) ও চট্টগ্রাম জেলা প্রশাসনের। এবারও ব্যতিক্রম ঘটনা ঘটেনি। ২০ ফেব্রুয়ারি চট্টগ্রাম জেলা প্রশাসনের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেটরা নগরীর বিভিন্ন এলাকায় অভিযান চালিয়ে যেসব প্রতিষ্ঠানের সাইনবোর্ডে শুধু ইংরেজি লেখা রয়েছে, সেই সাইনবোর্ডগুলোতে বাংলা লেখার নির্দেশ দিয়েছেন। এ জন্য তাদের সময় বেঁধে দেয়া হয়েছে তিন দিন।
এই তিন দিনের মধ্যে সাইনবোর্ডগুলোতে বাংলা লেখার নির্দেশনা মানা না হলে ভ্রাম্যমাণ আদালতের মাধ্যমে অভিযান চালিয়ে জেল-জরিমানা করা হবে বলেও সতর্ক করা হয়েছে।

এভাবে ২০১৭ সালের ৫ ফেব্রুয়ারিও চট্টগ্রাম নগরীর বিভিন্ন এলাকায় ইংরেজি লেখা সব ধরনের সাইনবোর্ড পরবর্ত ী সময়ে ৩০ দিনের মধ্যে বাংলা ভাষায় রূপান্তরের নির্দেশ দিয়ে পত্রিকায় বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করেছিল চসিক। কিন্তু তাতে কর্ণপাত করেনি নগরীর কেউ। এ কারণে এর প্রায় এক বছর পর ২০১৮ সালের ১ ফেব্রুয়ারি আরেকটি বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করে সেবাধর্মী সংস্থাটি।

এতে বলা হয়, ‘ইদানীং লক্ষ করা যাচ্ছে যে, কোনো কোনো প্রতিষ্ঠানের নামফলক, সাইনবোর্ড ও ব্যানার ইংরেজি ও অন্যান্য ভাষায় লেখা হয়েছে। পরবর্তী ৩০ দিনের মধ্যে ইংরেজি লেখা সাইনবোর্ড বাংলা ভাষায় রূপান্তরের নির্দেশ দেয়া হলো।’ তারপরও চসিকের ওই নির্দেশনা নগরীর অধিকাংশ প্রতিষ্ঠানই মানেনি। যে কারণে এখনো নগরীর বিভিন্ন এলাকায় সাইনবোর্ডে শুধু ইংরেজি লেখাই শোভা পাচ্ছে। অথচ ২০১৪ সালে হাইকোর্ট ‘সাইনবোর্ড বাংলায় লিখতে হবে’ এ সুস্পষ্ট নির্দেশনা দিয়েছেন।

মাঠপর্যায়ে সঠিক তদারকির অভাব
হাইকোর্টের দেয়া এই আদেশ পুরোপুরি বাস্তবায়ন না হওয়ার পেছনে মাঠপর্যায়ে সঠিক তদারকির অভাবকে চিহ্নিত করা হচ্ছে। এটি তদারকির দায়িত্ব চসিকের হলেও প্রতিবছর ফেব্রুয়ারি মাসেই শুধু তাদের তৎপরতা দেখা যায়। এর বাইরে সারা বছর উল্লেখযোগ্য দৃশ্যমান কোনো তৎপরতা তাদের দেখা যায় না।

এ প্রসঙ্গে চসিকের সাবেক মেয়র ও চট্টগ্রাম মহানগর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আ জ ম নাছির উদ্দীন বলেন, ‘মাতৃভাষা বাংলার জন্য এই জাতি রক্ত দিয়েছে। মায়ের ভাষা বাংলাকে প্রতিষ্ঠিত করার জন্য যে জাতি রক্ত দিয়েছে, সেই জাতি আজ প্রিয় ভাষাকে ভুলতে বসেছে। বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানের সাইনবোর্ডে দেখা যায় ইংরেজি হরফে লেখা থাকে। সেসব সাইনবোর্ডে বাংলা হরফ ছোট করে নিচে লেখা থাকে। আবার কোনো কোনো সাইনবোর্ডে বাংলা স্থানই পায় না। সেখানে শুধু ইংরেজি লেখা থাকে।’

তিনি বলেন, ‘আমার দায়িত্বের সময় নগর আওয়ামী লীগের পক্ষ থেকে এ ব্যাপারে দাবি জানানো হয়েছিল। আমি সিটি করপোরেশনের ভ্রাম্যমাণ আদালতের মাধ্যমে অনেক প্রতিষ্ঠানের সাইনবোর্ডের ইংরেজি হরফ মুছে দিয়েছিলাম। আমাদের অনুসরণ করে বিভিন্ন সংগঠনও তখন ইংরেজি হরফ মুছে দেয়ার কাজ করেছিল। কিন্তু দুঃখজনক হলেও সত্য, এখনো নগরের অনেক প্রতিষ্ঠানের সাইনবোর্ড ইংরেজি হরফে লেখা।’

তিনি আরো বলেন, ‘এবারের আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবসে নতুন মেয়রের কাছে আমাদের দাবি থাকবে- সব সাইনবোর্ডে প্রধান হরফ বাংলায় লেখা বাস্তবায়ন করতে হবে। ইংরেজি বা অন্য ভাষার লেখা নিচে লিখতে হবে। তা না হলে সংশ্লিষ্ট প্রতিষ্ঠানের ট্রেড লাইসেন্স বাতিল করতে হবে।’

এ বিষয়ে চট্টগ্রামের বিশিষ্ট আইনজীবী ও মানবাধিকারকর্মী এ এম জিয়া হাবীব আহসান বলেন, ‘প্রতিবছর ২১ ফেব্রুয়ারি এলে সর্বস্তরে বাংলা ভাষা চালুর সোচ্চার আওয়াজ শোনা যায়। কিন্তু ফেব্রুয়ারি চলে গেলে সে আওয়াজ আস্তে আস্তে ক্ষীণ হয়ে যায়। দুর্ভাগ্যজনক হলেও সত্য যে, আমরা ইংরেজি ২১ ফেব্রুয়ারির স্থলে বাংলা সনের ৮ ফাল্গুনকে এখনো শহীদ দিবস ও আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস হিসেবে চালু করতে পারিনি। সর্বস্তরে মাতৃভাষা বাংলা চালু হোক-  ভাষাশহীদদের প্রতি শ্রদ্ধা জানিয়ে এই প্রত্যাশা করি।’


/ওআর/

 

 

চট্টগ্রাম জেলা পুলিশ সুপারের কার্যালয় উদ্বোধন করলেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী

চট্টগ্রাম জেলা পুলিশ সুপারের কার্যালয় উদ্বোধন করলেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী

চট্টগ্রামে মোটরসাইকেলের ধাক্কায় বৃদ্ধের মৃত্যু

চট্টগ্রামে মোটরসাইকেলের ধাক্কায় বৃদ্ধের মৃত্যু

সবুজ ঘেরা পাহাড় আর জলের রাজ্য ফয়’স লেক

সবুজ ঘেরা পাহাড় আর জলের রাজ্য ফয়’স লেক

চট্টগ্রামে কমেনি ফার্মের মুরগির দাম, পেঁয়াজের কেজি ৫০

চট্টগ্রামে কমেনি ফার্মের মুরগির দাম, পেঁয়াজের কেজি ৫০

সাতকানিয়ায় আওয়ামী লীগ নেতাকে পিটিয়ে হত্যা

সাতকানিয়ায় আওয়ামী লীগ নেতাকে পিটিয়ে হত্যা

কাউকে প্রভাবশালী মনে করছি না, সরকার প্রভাবশালী: নৌ প্রতিমন্ত্রী

প্রভাবশালীর কথা বলে সুযোগ নেওয়ার উপায় নেই: নৌ প্রতিমন্ত্রী

Islami Bank Ad

জনপ্রিয়

‘মেজরের র‍্যাংক-ব্যাজ পরে প্রতারণা করতো অবসরপ্রাপ্ত সার্জেন্ট’

‘মেজরের র‍্যাংক-ব্যাজ পরে প্রতারণা করতো অবসরপ্রাপ্ত সার্জেন্ট’

দেওয়ানগঞ্জ পৌরসভা নির্বাচন স্থগিত

দেওয়ানগঞ্জ পৌরসভা নির্বাচন স্থগিত

'গাঙ্গুবাই কাঠিয়াওয়াড়ি' সিনেমায় অন্য এক আলিয়া

'গাঙ্গুবাই কাঠিয়াওয়াড়ি' সিনেমায় অন্য এক আলিয়া

পাপুলকাণ্ড: অশুভ সংস্কৃতি

পাপুলকাণ্ড: অশুভ সংস্কৃতি

নজরুল বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রশাসনিক ভবনে তালা

নজরুল বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রশাসনিক ভবনে তালা

শহীদ রফিক স্মৃতি পরিষদের আত্মপ্রকাশ

শহীদ রফিক স্মৃতি পরিষদের আত্মপ্রকাশ

লেখক মুশতাকের মৃত্যুর বিষয়ে রাবিতে প্রতিবাদ

লেখক মুশতাকের মৃত্যুর বিষয়ে রাবিতে প্রতিবাদ

ফ্যানের ইতিহাস

ফ্যানের ইতিহাস